Picture Credit- @Gopinkracing/twitter

এবারই প্রথম দুই চাকার কোনো যানে যোগ হয়েছে অ্যাপলের ইফোটেইনমেন্ট ব্যবস্থা কারপ্লে। প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট ভার্জ-এর প্রতিবেদনে বলা হয়েছে হন্ডার টুরিং মোটরসাইকেল গোল্ড উইংয়ের ২০১৮ সংস্করণে যোগ করা হয়েছে এই সেবা।

মোটর সাইকেলের এই কারপ্লে ব্যবস্থায় কিছু ভিন্নতাও রয়েছে। মোটরসাইকেল আরোহী তার বাইকের হাতলের মাঝখানে সাত ইঞ্চি এলসিডি পর্দায় কারপ্লে’র সকল তথ্য দেখতে পাবেন। এজন্য তাকে ইউএসবি কেবল দিয়ে আইফোন সংযুক্ত করতে হবে। এরপর এর সঙ্গে ব্লুটুথ হেডফোন সংযোগ করতে হবে গ্রাহককে। গ্রাহক চাইলে হেলমেটের বিল্টইন হেডফোনও এতে ব্যবহার করতে পারবেন।

সাত ইঞ্চি পর্দাটি টাচস্ক্রিন না হওয়ায় গাড়ির মতো এতে স্পর্শ করে হন্ডার এই কারপ্লে নিয়ন্ত্রণ করা যাবে না। এর পরিবর্তে হ্যান্ডলবার বা ট্যাংকের ওপর থাকা দিক নির্দেশনাকারী প্যাড দিয়ে এটি নিয়ন্ত্রণ করতে হবে। এর মাধ্যমে ম্যাপ, বার্তা বা মিউজিক নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন গ্রাহক।

Picture Credit- @Gopinkracing/twitter

নতুন মোটরসাইকেলটিতে রাখা হয়নি ‘অ্যান্ড্রয়েড অটো’ ব্যবস্থা। এজন্য গুগলকেই দোষারোপ করেছে হন্ডা। ইতোমধ্যেই প্রায় ৫০টি গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে কারপ্লে চুক্তি রয়েছে অ্যাপলের।

২০১৮ মডেলের গোল্ড উইং মোটরসাইকেলটির মূল্য রাখা হয়েছে ২৩৫০০ মার্কিন ডলার।

উল্লেখ্য ৭০ দশকে প্রথম গোল্ড উইং মোটরসাইকেল উন্মোচন করে হন্ডা। এবার এটির ২০১৮ সংস্করণ উন্মোচন করেছে প্রতিষ্ঠানটি। এতে ব্যবহার করা হয়েছে লিকুইড কুলিং ব্যবস্থা। আর চাবি ছাড়াই এটি সচল করতে পারবেন গ্রাহক। বাইকের কাছে গেলে এটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে আনলক হবে বলে জানানো হয়েছে।

NO COMMENTS