এবারও “গুগল” পৃথিবীর সেরা কর্মক্ষেত্র নির্বাচিত

Google Head Office

কর্মক্ষেত্রে কর্মীদের নানা সুযোগ-সুবিধা দেওয়ার উপর ভিত্তি করে সম্প্রতি বিশ্বের সেরা ১০০টি প্রতিষ্ঠানের তালিকা প্রকাশ করেছে ফরচুন ম্যাগাজিন। (Google elected as the best workplace for the 6th time) এ তালিকাতেই শীর্ষে রয়েছে তথ্যপ্রযুক্তিভিত্তিক প্রতিষ্ঠান গুগল। কর্মক্ষেত্রে কর্মীদের নানা সুযোগ-সুবিধা দেওয়ার জন্য টানা ছয়বার সেরা কর্মক্ষেত্র নির্বাচিত হলো গুগল।

এ তালিকায় থাকা সেরা ১০টি প্রতিষ্ঠান হলো ১. গুগল, ২. ওয়েগম্যানস ফুড মার্কেটস, ৩. দ্য বোস্টন কনসাল্টিং গ্রুপ, ৪. বেয়ার্ড, ৫. এডওয়ার্ড জনস, ৬. জেনেনটেক, ৭. আলটিমেট সফটওয়্যার, ৮. সেলসফোর্স, ৯. অ্যাকুইটি ইনসুরেন্স, ১০. কুইকেন লোনস।

শুধু কাজেই নয়, কর্মীদের উন্নয়নও বিশ্বাস করে গুগল। তাই কর্মীদের পছন্দ অনুযায়ী প্রকল্পে কাজ করতে দেওয়া, অন্যদের প্রশিক্ষণ দেওয়ার মাধ্যমে সৃজনশীলতায় উদ্বুদ্ধ করাসহ নানা ভাবে উৎসাহ দিয়ে থাকে এ প্রতিষ্ঠানটি।

কর্মীদের বিনামূল্যে খাবার, সেলুন, লন্ড্রি সুবিধার মতো সুষ্ঠু কাজের পরিবেশের ক্ষেত্রে অভিনব পদক্ষেপের জন্য বরাবরই প্রশংসিত হয়েছে গুগল। পিতৃত্বকালীন ছুটি, নতুন বাবাদের ৫০০ ডলার প্রদান, রাতে থাকার সুব্যবস্থা, ফ্রি মেডিক্যাল সুবিধাসহ মানসিক প্রশান্তির জন্য বিশ্রামাগার, লাইব্রেরি ও খেলার ব্যবস্থা সে সব পদক্ষেপেরই অংশ।

৮০ ভাগ গুগলার্স তাদের কর্মক্ষেত্রকে ‘নিরাপদ ও সমেত’ হিসেবে অভিহিত করেছে। গুগল টানা ছয়বার এ ক্ষেত্রে বিশ্বের সেরা প্রতিষ্ঠান নির্বাচিত হলেও প্রতিষ্ঠানটি শুরুর পর থেকে ১১ বছরে মোট আটবার এ শীর্ষস্থান অধিকার করল।

সুত্রঃ- বিবিসি

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY