Zunaid Ahmed Palak
Image credit: Zunaid Ahmed Palak Facebook page

২০২১ সালের মধ্যে দেশের শতভাগ মানুষকে ইন্টারনেট সংযোগের আওতায় আনা হবে বলে জানিয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ।

মঙ্গলবার নিউ ইয়র্কের ওয়ারথনে বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরাম আয়োজিত ‘ইমপেক্ট সামিটের’ প্যানেল আলোচনায় অংশ নিয়ে এ তথ্য জানান তিনি।

প্রতিমন্ত্রী জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষিত ‘রূপকল্প- ২০২১’ বাস্তবায়নে আইসিটি বিভাগ মানব সম্পদ উন্নয়ন, সবার জন্য ইন্টারনেট, ই-গভার্নেন্স প্রতিষ্ঠা ও শিল্পের উন্নয়নকে ‘মূল লক্ষ্য’ হিসেবে নির্ধারণ করেছে আইসিটি বিভাগ।

পলক বলেন, “সরকারি সেবার ৪০ শতাংশ আমরা ডিজিটাল উপায়ে দিচ্ছি। ২০২১ সালের মধ্যে ৯০ ভাগ সরকারি সেবা ডিজিটাল উপায়ে দিতে আমরা কাজ করে চলেছি।”

প্রতিমন্ত্রী জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষিত ‘রূপকল্প- ২০২১’ বাস্তবায়নে আইসিটি বিভাগ মানব সম্পদ উন্নয়ন, সবার জন্য ইন্টারনেট, ই-গভার্নেন্স প্রতিষ্ঠা ও শিল্পের উন্নয়নকে ‘মূল লক্ষ্য’ হিসেবে নির্ধারণ করেছে আইসিটি বিভাগ।

 

বর্তমানে ১০ লাখ বাংলাদেশি অনলাইনে কাজ করেন জানিয়ে পলক বলেন, অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটির প্রতিবেদন অনুসারে, অনলাইন কর্মীর সংখ্যায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে বাংলাদেশ । তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) আগামী তিন বছরে  খাতে ২০ লাখ কর্মসংস্থান তৈরিতে সরকারের ‘সুনির্দিষ্ট লক্ষ্য’ রয়েছে বলে জানিয়েছেন জুনাইদ আহমেদ পলক।

জিডেকা হেরির সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে রুয়ান্ডার যুব ও আইসিটি মন্ত্রী জিন ফিলবার্ট সেজিমনা, পাকিস্থানের আইসিটি প্রতিমন্ত্রী আনুশা রহমান খান ও টার্কসেলের সিইও কান টার্জিগ্লু উপস্থিত ছিলেন।

আইসিটি খাতে ২০৩০ সালের মধ্যে ৫০ শতাংশ নারীর অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে বাংলাদেশ সরকারের উইমেন আইসিটি ফ্রন্ট্রিয়ার ইনিশিয়েটিভ (ওয়াইফাই) প্রকল্প চালু করায় প্রশংসা করেন জিডকো হেরি।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY