নকিয়া ব্যবহার কারীদের জন্য সুখবর। নকিয়া আবার ফোন উৎপাদন শুরু করবে। নকিয়ার ব্র্যান্ড নাম ব্যবহার করে স্মার্টফোন -ট্যাব তৈরি করবে ফিনল্যান্ডের প্রতিষ্ঠান এইচএমডি (HMD Global Oy) এবং তাইওয়ানের ফক্সকন (Foxconn) সাবসিডিয়ারি হিসেবে নোকিয়া ব্র্যান্ডের পণ্য তৈরী করবে। এই উপলক্ষে এইচএমডি ও নকিয়া নিজেদের মধ্যে ১০ বছরের চুক্তি সই করেছে। এর ফলে HMD প্রতিষ্ঠানটির কাছ থেকে ব্র্যান্ড লাইসেন্স ও মেধাস্বত্ব ফি হিসেবে অর্থ নেবে নকিয়া।

একসময় বিশ্বের বৃহত্তম মোবাইল ফোন নির্মাতা নকিয়া স্মার্টফোনের উত্থানের যুগে ভুল পদক্ষেপের কারণে অ্যাপল ও স্যামসাংয়ের কাছে মার খেয়েছে। ২০১৪ সালে মাইক্রোসফটের কাছে মোবাইল ফোন বিভাগটি বিক্রি করে দেয় নকিয়া। তবে মোবাইল ফোনের পেটেন্ট নিজের কাছে রেখে দেয় প্রতিষ্ঠানটি।

এখন সরাসরি ফোন তৈরিতে না নামলেও ব্র্যান্ড লাইসেন্সিংয়ের মাধ্যমে আবার নকিয়া নামটি ব্যবহারের অনুমতি দিচ্ছে তারা। তবে মাইক্রোসফটের সঙ্গে চুক্তির কারণে আগামী বছরের আগে নকিয়া ব্র্যান্ডের স্মার্টফোন বাজারে আসবে না।

বুধবার মাইক্রোসফট জানিয়েছে, প্রাথমিক পর্যায়ের ফোন সম্পদ ফক্সকনের প্রতিষ্ঠান এফআইএইচ মোবাইল ও এইচএমডির কাছে ৩৫০ মিলিয়ন ডলারে বিক্রি করবে। সেই চুক্তিরই অংশ হিসেবে, এইচএমডি মাইক্রোসফটের কাছ থেকে নোকিয়া ব্র্যান্ড ২০২৪ সাল পর্যন্ত ব্যবহার করার অধিকার কিনে নিয়েছে।

নোকিয়া নতুন ডিভাইস কখন আসবে এই সময়সূচী প্রকাশে অস্বীকৃতি জানিয়েছে। মাইক্রোসফট স্মার্টফোন ব্যবসায় খুব একটা ভালো করতে পারছে না। তাই মোবাইল ডিভিশন থেকে ৭.৫ বিলিয়ন ডলার সরিয়ে নিয়েছে গত বছর। তবে লুমিয়া মোবাইল উন্নয়ন অব্যাহত রাখবে বলে জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY