স্পর্শ করলে অনুভূতির প্রতিক্রিয়া দেখায়। টোকা দিলে, ফেলে দিলে একইভাবে দেয় সাড়া। টেলিকম প্যারিসের গবেষকেরা কৃত্রিম মানব চামড়া দিয়ে এমনই রোমাঞ্চকর এক ধরনের ফোনকেস বানিয়েছেন।

প্রজেক্টটির প্রধান গবেষক মার্ক টয়সিয়ার তাদের ওয়েবসাইটে বিষয়টি এভাবে ব্যাখ্যা করেছেন, ‘এখনকার ডিভাইসের সক্ষমতা বাড়াতে আমরা স্পর্শকাতর স্কিন-অন ইন্টারফেস তৈরি করেছি।

যখন আমরা কাউকে স্পর্শ করি, তখন চামড়াকে ইন্টারফেস হিসেবে ব্যবহার করা হয়। এ ক্ষেত্রে ফোন ব্যবহারের সময় সাধারণত যে ইন্টারফেস ব্যবহার করা হয়, সেটি সাড়া দেয় না। ’

‘এই প্রজেক্টে আমি এমন একটি ইন্টারফেস তৈরি করতে চেয়েছি, যেটি মানুষের চামড়ার মতো প্রতিক্রিয়া দেখায়। ’

এই প্রযুক্তিবিদ জানান, অদ্ভুত কেসটির দুটি ধরন রাখা হয়েছে। একটিকে বলা হচ্ছে বেসিক ইউনিফর্ম সারফেস এবং অন্যটি রিয়েলিস্টিক। কবে নাগাদ কেনা যাবে, সে বিষয়ে কিছু জানা যায়নি।

কৃত্রিম এই চামড়ার কেস বানানো হয়েছে প্রসারিত তামা তারের স্তর দিয়ে, যা রাখা হয়েছে সিলিকনের দুটি লেয়ারের ভেতর।

টেলিকম প্যারিসের একটি ভিডিওতে দেখা গেছে, ল্যাপটপের সঙ্গে সংযোগ দিয়ে এই কেসের ভেতর ফোন রেখে ব্যবহার করা হচ্ছে। বাইরে থেকে সুড়সুড়ি (Tickling) দিলে ল্যাপটপের স্ক্রিনে সেটি ইংরেজি শব্দে লেখা আসছে।